সোমবার, ১৯ এপ্রিল ২০২১, ১১:৩০ পূর্বাহ্ন

আন্দোলনে অসুস্থ ৭ শিক্ষার্থী হাসপাতালে ভর্তি

  • আপডেট টাইম সোমবার, ৯ মার্চ, ২০২০, ৯.৫০ পিএম

বশেমুরবিপ্রবি টুডে  


বিশ্ববিদ্যালয়ের এক কর্মচারী শিক্ষার্থীদের জামাত-শিবির বলায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বশেমুরবিপ্রবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. শাহজাহানসহ প্রায় ৩০ শিক্ষক-কর্মকর্তাকে অবরুদ্ধ করে রাখে ইতিহাস বিভাগের আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। এ সময় অসুস্থ হয়ে গোপালগঞ্জ সদর হাসপাতালে ৭ জন শিক্ষার্থী ভর্তি রয়েছেন।

এদিকে ইউজিসি কর্তৃক ইতিহাস বিভাগের অনুমোদনের দাবিতে গত ০৬ ফেব্রুয়ারি রাত থেকে আন্দোলন করছে বিভাগটির শিক্ষার্থীরা।

আজ সোমবার (৯ মার্চ) দুপুর ২টা থেকে সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টা পর্যন্ত একাডেমিক ভবনের ৫০১ নম্বর কক্ষে মিটিংয়ে বসে উপাচার্যসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। পরে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা তাদেরকে অবরুদ্ধ করে কক্ষের সামনে অবস্থান নেয়।

উপাচার্যকে অবরুদ্ধের বিষয়ে মুখপাত্র কারিমুল হক জানিয়েছেন, ইতিহাস বিভাগের অনুমোদন এর দাবিতে কথা বলতে গেলে বিশ্ববিদ্যালয় কর্মচারী ইতিহাস বিভাগের সকলকে জামাত-শিবির বলায় উপাচার্যকে অবরুদ্ধ করা হয়েছে।

এ দিকে শিক্ষার্থীদের জামায়াত-শিবির বলে মন্তব্য করার বিষয়টি অস্বীকার করে বিশ্ববিদ্যালয়ের চলত্বি উপাচার্য ড. মো. শাহজাহান বলেন, শিক্ষার্থীদের এমন কিছু ডাকার ঘটনা ঘটেনি।

এর আগে, সকালে শিক্ষার্থীরা উপাচার্য, রেজিস্ট্রার, প্রক্টর, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক, অর্থসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল দপ্তরে তালা ঝুলিয়ে দিয়েছে। ফলে প্রশাসনিক কোনো কর্মকর্তাই সংশ্লিষ্ট দপ্তরে প্রবেশ করতে না পারায় প্রশাসনিক কার্যক্রমও পরিচালনা করতে পারেননি।

উল্লেখ্য, বশেমুরবিপ্রবির সাবেক উপাচার্য খোন্দকার নাসিরুদ্দিন ইউজিসির অনুমোদন ব্যতীত ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষে ইতিহাস বিভাগের শিক্ষা কার্যক্রম শুরু করেন। প্রায় ৩ বছর পর বৃহস্পতিবার (৬ ফেব্রুয়ারি) বিভাগটিতে নতুন কোনো শিক্ষার্থী ভর্তি না করার নির্দেশ দেয় ইউজিসি। ইউজিসির সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে ওইদিন রাত থেকেই আন্দোলন শুরু করে শিক্ষার্থীরা।

The Campus Today YouTube Channel

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
themesbazar_creativenews_II7
All rights reserved © 2019-20 The Campus Today