ইসলামী শিক্ষার প্রসারে অবদান রেখে গেছেন আহমেদ শফী : প্রধানমন্ত্রী

ইসলামী শিক্ষার প্রসারে অবদান রেখে গেছেন আহমেদ শফী : প্রধানমন্ত্রী

ক্যাম্পাস টুডে ডেস্ক


হেফাজতে ইসলামের আমির ও চট্টগ্রামের হাটহাজারী উপজেলার আল-জামিয়াতুল তাহলিমা দারুল উলুম মঈনুল ইসলাম মাদ্রাসার সাবেক মহাপরিচালক আল্লামা শাহ আহমদ শফীর মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
শুক্রবার, এক শোকবার্তায় শেখ হাসিনা বলেন, তিনি ইসলামী শিক্ষার প্রচার ও প্রসারে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে গেছেন। পাশাপাশি কওমি মাদ্রাসা শিক্ষা ব্যবস্থার আধুনিকায়নেও ভূমিকা রেখেছেন।

এসময় প্রধানমন্ত্রী মরহুমের আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন এবং তার শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।
এর আগে শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টা ৪০ মিনিটে রাজধানীর আজগর আলী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান আল্লামা শাহ আহমদ শফী। হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য মাওলানা আতাউল্লাহ আমিন সমকালকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, উন্নত চিকিৎসার জন্য শুক্রবার বিকালে হেলিকপ্টারে করে উনাকে চট্টগ্রাম থেকে ঢাকায় নিয়ে আসা হয়েছিল। আজগর আলী হাসপাতালে ভর্তির পর সন্ধ্যায় তিনি ইন্তেকাল করেন।
এর আগে গত বৃহস্পতিবার রাতে আল্লামা শাহ আহমদ শফী অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি করা হয়। সেখানে অবস্থা অবনতি হওয়ায় শুক্রবার সন্ধ্যায় এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে ঢাকায় এনে আজগর আলী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় চট্টগ্রামের হাটহাজারী উপজেলার‌ আল-জামিয়াতুল তাহলিমা দারুল উলুম মঈনুল ইসলাম মাদ্রাসার (যা হাটহাজা‌রী মাদ্রাসা না‌মে প‌রি‌চিত) মহাপ‌রিচাল‌কের পদ থে‌কে পদত্যাগ করেন আল্লামা শাহ আহমদ শফী। এরপর অসুস্থ আহমদ শফীকে মাদ্রাসা থেকে অ্যাম্বুলেন্সে করে হাসপাতালে পাঠানো হয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *