বুধবার, ১৭ অগাস্ট ২০২২, ০৯:০৬ পূর্বাহ্ন

কলেজের ৭২ লাখ টাকা আত্মসাৎ, অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা

  • আপডেট টাইম বুধবার, ১৪ অক্টোবর, ২০২০, ১.৩৮ পিএম
অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা

ক্যাম্পাস টুডে ডেস্ক


দুর্নীতির মামলায় রাজশাহীর গোদাগাড়ী সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ আব্দুর রহমানের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি জারি করেছে রাজশাহী জেলা ও দায়রাজজ আদালত। সোমবার (১২ অক্টোবর) এ গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন বিচারক মীর শফিকুল ইসলাম।

গত ২০১৮ সালে গোদাগাড়ী সরকারি কলেজের উপাধ্যক্ষ মো. উমরুল হক অধ্যক্ষ আব্দুর রহমানের বিরুদ্ধে বিজ্ঞ সিনিয়র স্পেশাল ট্রাইবুনাল ও রাজশাহী দায়রা জজ আদালতে মামলা করেন। সে বছরই প্রতিষ্ঠানটি সরকারি ঘোষণা করে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞ আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে দুদকের রাজশাহী জেলা কার্যালয়কে অভিযোগ তদন্তের দায়িত্ব দেন। রাজশাহী জেলা দুদকের সমন্বিত কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক মো. আলমগীর হোসেন মামলাটি তদন্ত করেন।

আলমগীর হোসেন গণমাধ্যমকে বলেন, গোদাগাড়ী সরকারি কলেজের উপাধ্যক্ষ মো. ইমরুল হক ২০১৮ সালে অধ্যক্ষ আব্দুর রহমানের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগে আদালতে মামলা দায়ের করেন। আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে দুদক রাজশাহী সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের ওপর তদন্তভার দেন।

বিজ্ঞাপন

তদন্তে অধ্যক্ষ কলেজের ব্যাংক হিসাব থেকে ৭২ লাখ ৪২ হাজার ৭৩০ টাকা আত্নসাৎ করেছেন বলে প্রমাণ মেলে। এছাড়াও তার বিরুদ্ধে কলেজে শিক্ষক নিয়োগে অনিয়মের প্রমাণ পাওয়া যায়।

এছাড়াও মনোবিজ্ঞান বিভাগের প্রভাষক তারেক আজিজকে নিয়োগ দেয়ার জন্য চেকের মাধ্যমে অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে আসা ৯ লাখ টাকা ঘুষ নেয়ার অভিযোগটি দুদক তদন্ত করেছে। আর বাংলা বিভাগের প্রভাষক মনিরুল ইসলামের কাছ থেকে ৮ লাখ টাকা ঘুষ নেয়া অভিযোগও আছে অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে।

বিজ্ঞাপন

অপরদিকে গোদাগাড়ী সরকারি কলেজের অনেক শিক্ষক নাম প্রকাশ না করার শর্তে অধ্যক্ষ আব্দুর রহমানের নামে গ্রেফতারি পরেয়ানা জারি হওয়ায় উল্লাস প্রকাশ করেন। দুর্নীতিবাজ অধ্যক্ষর উপযুক্ত শাস্তি দাবি করেন তারা। তারা বলেছেন, অধ্যক্ষ আব্দুর রহমানের বিরুদ্ধে আরও তদন্ত করলে কলেজের বিপুল পরিমাণ অর্থ আত্নসাতের বিষয়টি প্রমাণিত।

বিজ্ঞাপন

The Campus Today YouTube Channel

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
themesbazar_creativenews_II7
All rights reserved © 2019-20 The Campus Today