সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০২০, ০১:২২ পূর্বাহ্ন

ট্রাম্পের বিরুদ্ধে জোর পূর্বক চুমু দেয়ার অভিযোগ!

  • আপডেট টাইম শনিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৯.১২ পিএম
ট্রাম্পের বিরুদ্ধে জোর পূর্বক চুমু দেয়ার অভিযোগ!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক


আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আগেই একের পর এক কেলেঙ্কারিতে নাম জড়াচ্ছে বর্তমান প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। প্রধান দুই প্রতিদ্বন্দ্বী রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প এবং ডেমোক্র্যাটিক প্রার্থী জো বাইডেন একে অপরের উপরে আক্রমণ চালাচ্ছেন।

এবার ট্রাম্পের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্থার অভিযোগ করেছেন সাবেক মডেল অ্যামি ডরিস। তার অভিযোগ, ১৯৯৭ সালে তাকে যৌন নিগ্রহ করেন ট্রাম্প। ফলে নির্বাচনের আগেই বেশ অস্বস্তিতে রিপাবলিকান শিবির।

দ্য গার্ডিয়ানকে দেয়া সাক্ষাৎকারে ডরিস জানান, ‘১৯৯৭ সালে ট্রাম্প আমাকে জোর করে চুম্বন করেন। ঘটনাটা ঘটেছিল নিউ ইয়র্কে ইউএস ওপেন টেনিস চ্যাম্পিয়নশিপ চলার সময় ভিআইপি বক্সে।’ ডরিস বলেছেন, ‘ট্রাম্প আমায় চেপে ধরেন। তারপর জোর করে তার জিভ আমার মুখের ভেতরে ঢুকিয়ে দেন। ট্রাম্প এত জোরে চেপে ধরেছিলেন যে আমি ছাড়াতে পারছিলাম না। আমি বারবার তাকে থামতে বলেছিলাম, কিন্তু তিনি থামেননি।’

ডরিসের দাবি, ‘আমি সে সময় অনেককে এই ঘটনার কথা বলেছিলাম। তাদেরকে জিজ্ঞাসা করে দেখতে পারেন।’ যখন এই ঘটনা ঘটেছিল, তখন তার বয়স ছিল ২৪ বছর। ট্রাম্পের ৫১। তিনি তখন দ্বিতীয় বিয়ে করেছেন। গার্ডিয়ানকে এক বছর আগে এই সাক্ষাৎকার দেন ডরিস। তার অনুরোধ ছিল, তখন তা যেন ছাপা না হয়। তিনি বলেছেন, ট্রাম্প এই কাজ করার পরেও ছাড়া পেয়ে গেছেন দেখে আমার খুব খারাপ লাগে।

এদিকে ট্রাম্পের আইনজীবী গার্ডিয়ানকে জানিয়েছেন, ডরিস যা বলছেন তা একেবারেই বিশ্বাসযোগ্য নয়। এরকম ঘটনা ঘটলে তার তো সাক্ষী থাকবে। আগামী ৩ নভেম্বর প্রেসিডেন্ট নির্বাচন। তার আগে এই ধরনের অভিযোগ পুরোপুরি রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত।

The Campus Today YouTube Channel

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
themesbazar_creativenews_II7
© All rights reserved © 2019-20 The Campus Today
Theme Download From ThemesBazar.Com