ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণের ঘটনায় নোবিপ্রবি শিক্ষক সমিতির প্রতিবাদ

মাইনুদ্দিন পাঠান, নোবিপ্রবি প্রতিনিধি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীর ধর্ষণের ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়ে ধর্ষকের কঠোর শাস্তির দাবি করেছেন নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (নোবিপ্রবি) শিক্ষক সমিতি।

মঙ্গলবার (৭ ডিসেম্বর) বিকালে নোবিপ্রবি শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. নেওয়াজ মোহাম্মদ বাহাদুর ও সাধারণ সম্পাদক মো. মজনুর রহমানের স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, আমরা অত্যন্ত বেদনাহত চিত্তে ও তীব্র ক্ষোভের সাথে জানাচ্ছি যে, গত ৫ তারিখ (রবিবার) সন্ধ্যায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন ছাত্রী কুর্মিটোলা এলাকায় বিশ্ববিদ্যালয়ের লাল বাস থেকে নামলে কিছু দুর্বৃত্ত কর্তৃক অপহরণ ও ধর্ষণের শিকার হন। নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (নোবিপ্রবি) শিক্ষক সমিতির পক্ষ থেকে আমরা এই মানবতাবিরোধী জঘন্য ও পাশবিক ঘটনায় ধিক্কার ও প্রতিবাদ জানাই।

বিবৃতিতে আরো বলা হয়, ধর্ষণ একটি মারাত্মক সামাজিক ব্যাধিতে পরিনত হচ্ছে। আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর শৈথিল্য, বিচারের দীর্ঘসূত্রিতা এবং কখনো কখনো সঠিক তদন্তের অভাবে অপরাধীর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি না হওয়ায় সমাজে ধর্ষণ-ব্যাধির বিস্তার ঘটে চলেছে। এখনই এসবের মূলোৎপাটনে রুখে দাঁড়াতে হবে, নতুবা এটি অধিকতর মহামারি আকার ধারণ করবে। আমরা অতিসত্ত্বর ধর্ষণের কাজে লিপ্ত মানুষরুপী পশুকে আইনের আওতায় এনে দ্রুততম সময়ের মধ্যে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিত করার জন্য সরকারের প্রতি আহবান জানাচ্ছি।

উল্লেখ্য, গতকাল ৫ জানুয়ারী সন্ধ্যায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী বিশ্ববিদ্যালয়ের “ক্ষণিকা” বাস থেকে কুর্মিটোলা বাসস্যান্ডে নামেন। এসময় কয়েকজন পেছন থেকে মুখ চেপে ধরে তাকে ধর্ষণ করে নির্জন জায়গায় রেখে যায়। রাত ১০ টায় বন্ধুদের সহযোগিতায় তাকে ঢামেকের ভর্তি করা হয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন
fb-share-icon
Tweet

এই বিভাগের আরও সংবাদ

Leave a Comment