বৃহস্পতিবার, ২৯ অক্টোবর ২০২০, ০২:৪২ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরেনাম ::
পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে সেমিস্টার ফাইনাল পরীক্ষা নিয়ে এতো গড়িমসি কেন? বিয়ে করলেন অর্ণব ইসলাম ধর্ম নিয়ে কটুক্তি, বহিষ্কার নোবিপ্রবির আলোচিত দুই শিক্ষার্থী বিনামূল্যে ইন্টারনেট ও ১০টাকায় সিম পাচ্ছে চবি শিক্ষার্থীরা বশেমুরবিপ্রবিতে ভর্তির দাবিতে দ্বিতীয় দিনের মত অনশনে ভর্তিচ্ছুরা নোবিপ্রবি: দুই শিক্ষার্থীকে স্থায়ী বহিষ্কারের দাবীতে দ্বিতীয় দিনের মতো চলছে অবস্থান কর্মসূচি “গুলশান আরা সিটি” নাকি জগন্নাথের “তিব্বত হল”? সেশন জট থেকে আমাদের বাঁচান ধর্ম নিয়ে কটুক্তি করায় নোবিপ্রবির চার সংগঠন থেকে প্রতীক মজুমদারকে বহিষ্কার জবিতে তিথী সরকার কে স্থায়ী বহিষ্কারের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও স্মারকলিপি প্রদান

নূর গ্যাং এর দ্বারা শুরু হওয়া ধর্ষণ দেশব্যাপী ছড়িয়ে পড়েছে: জয়

  • আপডেট টাইম শনিবার, ১০ অক্টোবর, ২০২০, ১.০৭ পিএম

ক্যাম্পাস টুডে ডেস্ক

ইভটিজিং ও ধর্ষণ ঠেকাতে নেতাকর্মীদের পাহারা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন ছাত্রলীগ সভাপতি আল নাহিয়ান খান জয়। এ ছাড়া নুর গংদের দ্বারা শুরু হওয়া ধর্ষণ সারাদেশব্যাপী ছড়িয়ে পড়ছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি।

শুক্রবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যে ধর্ষণবিরোধী মিছিল ও সমাবেশে তিনি এ কথা বলেন।

এতে সভাপতিত্ব করেন ছাত্রলীগের সভাপতি আল নাহিয়ান খান জয়। সমাবেশে বক্তব্য রাখেন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্য, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি সনজিত চন্দ্র দাস, সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেনসহ ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ ছাত্রলীগের নেতৃবৃন্দ।

জয় বলেন, গত কয়েক দিন ধরে আমরা ধষর্কের বিরুদ্ধে বিভিন্ন কর্মসূচির মাধ্যমে প্রতিবাদ জানিয়ে আসছি। এদিকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ১৮ দিন ধরে ধর্ষকের বিরুদ্ধে মামলা করেছে। কিন্তু কই সেই ধর্ষণের মাস্টারমাইন্ড? সেই ধর্ষককে তো এখনও গ্রেপ্তার করা হয়নি? তাহলে আমরা কি ধরে নেবো? তারা কি অনেক পাওয়ারফুল? কখনই না।

নুর-রাশেদের প্রতি ঈঙ্গিত করে লেখক ভট্টাচার্য বলেন, তারা এই (ধর্ষণবিরোধী) আন্দোলনকে ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করতে চায়, সরকারবিরোধী আন্দোলনে রুপ দিতে চায়। কেন সরকার নিয়ে আপনাদের কী সমস্যা? সবাইকেই তো গ্রেপ্তার করা হয়েছে শুধু মাত্র তাদের এজেন্ডা বাহিনী ছাড়া। তাদের গ্রেপ্তার করুন। তাহলে সব ধর্ষক ভয় পাবে। যে বাবা তার মেয়েকে ধর্ষণ করেছে সেখানে নৈতিক স্খলন ছাড়া আর কোনো কারণ আছে?

তিনি নেতাকর্মীদের উদ্দেশে বলেন, আপনার আওতার মধ্যে যদি কোনো মা-বোনকে ধর্ষণ করা হয়, শ্লীলতাহানি বা ইভটিজিং করা হয়, সাথে সাথে তার বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলুন। ধর্ষকদের চামড়া দিয়ে ডুগডুগি বাজিয়ে আমরা তাদের শাস্তি নিশ্চিত করবো।

সনজিত চন্দ্র দাস বলেন, সারা বাংলাদেশের যেখানেই ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে, সবার আগেই ছাত্রলীগ রাজু ভাস্কর্যে প্রতিবাদ করেছে। কিন্তু দুর্ভাগ্য হলো বাংলাদেশের মেধাবী তরুণ সত্য ইতিহাস বাদ দিয়ে এখন ফেসবুকের ইতিহাস গ্রহণ করেছে।

The Campus Today YouTube Channel

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
themesbazar_creativenews_II7
© All rights reserved © 2019-20 The Campus Today
Theme Download From ThemesBazar.Com