বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের অবহেলা, ভবিষ্যৎ নিয়ে শঙ্কিত ৪’শতাধিক শিক্ষার্থী

বশেমুরবিপ্রবি প্রতিনিধি


বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের (ইউজিসি) ভর্তি বন্ধের নির্দেশনা প্রত্যাখ্যান করে তৃতীয় দিনের মতো গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (বশেমুরবিপ্রবি) ইতিহাস বিভাগের শিক্ষার্থীরা অবস্থান কর্মসূচি পালন করছেন। শিক্ষার্থীরা বিভাগটির অনুমোদন দাবি করছেন।

শনিবার সকাল থেকেই ইতিহাস বিভাগের শিক্ষার্থীরা প্রশাসনিক ভবনের সামনে বিভাগটির অনুমোদনের দাবিতে তৃতীয় দিনের মতো অবস্থান কর্মসূচি নিয়েছেন।

এর আগে ৬ ফেব্রুয়ারি ইউজিসির এক সভায় সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বিশ্ববিদ্যালয়টিতে আগামী শিক্ষাবর্ষ থেকে ইতিহাস বিভাগে আর কোন শিক্ষার্থী ভর্তি করা হবে না। ইতিহাস বিভাগের শিক্ষার্থীরা এই সিদ্ধান্ত প্রত্যাখ্যান করে ওইদিন রাতে ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন। এসময় তারা প্রশাসনিক ও একাডেমিক ভবনে তালা ঝুলিয়ে দিয়ে প্রশাসনিক ভবনের সামনে অবস্থান কর্মসূচি শুরু করেন।

ইতিহাস বিভাগের প্রথম ব্যাচের শিক্ষার্থী মুন্সী ওহিদুর রহমান বলেন, ইউজিসি যতদিন পর্যন্ত আমাদের বিভাগের স্বীকৃতি না দিবে ততদিন আমাদের আন্দোলন চলবে। প্রয়োজনে আমরা আরো কঠোর আন্দোলনে যাবো।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. শাহজাহান বলেন, ইউজিসির এক সভায় বিভাগটিতে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের শিক্ষাজীবন সুষ্ঠুভাবে সমাপ্ত করার জন্য যাবতীয় ব্যবস্থা গ্রহণের কথা বলা হয়েছে। এছাড়া আগামী শিক্ষাবর্ষ থেকে বিভাগটিতে নতুন করে শিক্ষার্থী ভর্তি বন্ধের বিষয়ে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, ইউজিসির কোনো অনুমোদন ছাড়াই ২০১৭ সালে বঙ্গবন্ধু ইনস্টিটিউট অব লিবারেশন ওয়ার অ্যান্ড বাংলাদেশ স্টাডিজ (বিলওয়াবস) ইনস্টিটিউটের অধীনে ইতিহাস বিভাগ চালু করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ড. খোন্দকার নাসিরউদ্দিন। বিভাগটিতে বর্তমানে চার শতাধিক শিক্ষার্থী রয়েছেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও সংবাদ

Leave a Comment