লোকাল কনফারেন্স অফ ইয়্যুথ ২০২৩ এ জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ক সচেতনতা ও নীতি সংশোধনে তরুণ দের অংশগ্রহণ ও মতবিনিময়

বশেমুরবিপ্রবি প্রতিনিধি: লোকাল কনফারেন্স অফ ইয়্যুথ (এলসিওওয়াই) বাংলাদেশ 2023 একটি সাস্টেইনাবল পরিবেশ তৈরি করার লক্ষ্যে, বিশ্বব্যাপী প্ল্যাটফর্মে তরুণদের কণ্ঠস্বর তুলে ধরার লক্ষ্যে জলবায়ু সংক্রান্ত ন্যায়- নীতি সংশোধনে তরুণদের সরাসরি অংশগ্রহণ নিশ্চিত করার পাশাপাশি জলবায়ু সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধির সহযোগিতামূলক কার্যক্রম চালিয়ে যাওয়ার লক্ষ্যে চালু করা হয়েছে। উক্ত অনুষ্ঠানটি গত ৮ ও ৯ অক্টোবর, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা একাডেমিতে অনুষ্ঠিত হয়। এলসিওওয়াই মুলত জলবায়ু পরিবর্তন ও তরূণদের নিয়ে কাজ করে। প্রধান অতিথি হিসেবে ছিলেন পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন উপমন্ত্রী বেগম হাবীবুন নাহার এমপি। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন অফিসার্স ইন চার্জ, ইউনেস্কো (UNESCO) – ড. সুসান ভিজ, সেন্টার ফর ক্লাইমেট জাস্টিস-বাংলাদেশের পরিচালক- এম হাফিজুল ইসলাম খান, সহকারী আবাসিক প্রতিনিধি – গণতান্ত্রিক শাসন -আনোয়ারুল হক, পরিবেশ,বন ও জলবায়ু পরিবর্তন বিভাগের অতিরিক্ত সচিব- সঞ্জয় কুমার ভৌমিক সহ অনেকেই। এই কনফারেন্স এ অংশ নেওয়া ও মতবিনিময় এর সুযোগ পেয়েছে বশেমুরবিপ্রবি এর দুই শিক্ষার্থী – সানজিদা বিনতে শাফিন ( ইএসডি ৪র্থ বর্ষ) ও তাহামিম সুবাদ লাবীব ( টুরিজম ১ম বর্ষ)।

বেগম হাবীবুন নাহার উপমন্ত্রী বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনে তরুণদের এগিয়ে আসতে বলেন, নারী জাগরণের কথা উল্লেখ করেন। তিনি উদাহরণ সরূপ প্রীতিলতা এর কথা তুলে ধরেন। এছাড়াও তিনি দেশের বিভিন্ন প্রকল্প ও রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র নিয়ে আলোচনা করেন।

লাবীব জানান, সম্প্রতি আমি লোকাল কনফারেন্স অফ ইয়্যুথ ২০২৩-এ অংশগ্রহণের অবিশ্বাস্য সুযোগ পেয়েছি, এবং এটি ছিল মন ছুঁয়ে যাওয়ার মতন আলোচনা সভা। LCOY এর অর্থ হল স্থানীয় যুব সম্মেলন, এবং এটি একটি বিশ্বব্যাপী আন্দোলন যেখানে আমাদের মত তরুণরা জলবায়ু পরিবর্তন নিয়ে আলোচনা করতে এবং পদক্ষেপ নিতে একত্রিত হয়। এটা সব যুব ক্ষমতায়ন এবং জলবায়ু ন্যায়বিচার সম্পর্কে, আমাদের ওয়ার্কশপ, প্যানেল আলোচনা এবং এমনকি ইন্টারেক্টিভ ক্রিয়াকলাপ ছিল যা আমাদের জলবায়ু পরিবর্তনের জরুরিতা এবং কীভাবে আমরা একটি পার্থক্য করতে পারি তা বুঝতে সাহায্য করেছিল।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও সংবাদ

Leave a Comment