মঙ্গলবার, ১৬ অগাস্ট ২০২২, ০৪:০৩ অপরাহ্ন

হল খুলে পরীক্ষা নেয়ার দাবি রাবি ছাত্রনেতাদের

  • আপডেট টাইম রবিবার, ১৩ ডিসেম্বর, ২০২০, ৫.৫১ পিএম

ওয়াসিফ রিয়াদ, রাবি প্রতিনিধিঃ রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) আটকে থাকা স্নাতক শেষ বর্ষ ও স্নাতকোত্তরের চুড়ান্ত পরীক্ষা নেওয়া এবং তার আগে স্বাস্থ্যসুরক্ষা নিশ্চিত করে আবাসিক হল খুলে দেওয়ার দাবি জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্রিয়াশীল ছাত্র সংগঠনের নেতারা।

আজ রবিবার এক সাক্ষাৎকারে সংগঠনের ছাত্রনেতারা এসব দাবি জানান।

বিজ্ঞাপন

এর আগে গণমাধ্যমকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে আগামী ১৯ ডিসেম্বর একাডেমিক কাউন্সিলের সভায় পরীক্ষা নেয়া হবে কি না- এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে বলে জানান উপাচার্য অধ্যাপক এম আব্দুস সোবহান। উপাচার্য বলেন, ‘সভায় ইতিবাচক সিদ্ধান্ত হলে ডিসেম্বরেই পরীক্ষাগুলো নেয়া হবে। তবে পরীক্ষা নেয়া হলেও হলগুলো খুলে দেয়া হবে না।’ তবে উপাচার্যের এমন মন্তব্যের পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সমালোচনা তৈরি হয়েছে।

শিক্ষার্থী ও ছাত্রনেতাদের বলছেন, হলে থাকার ব্যবস্থা করে দ্রুত পরীক্ষা নেয়া হোক।
জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ফয়সাল আহমেদ রুনু বলেন, পরীক্ষার্থীদের জন্য হল উন্মুক্ত করে, স্বাস্থ্য-সুরক্ষা নিশ্চিত করে পরীক্ষা গ্রহণ করা বাস্তবসম্মত এবং উত্তম সিদ্ধান্ত।

বিজ্ঞাপন

আমরা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানাই, অনতিবিলম্বে সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করে শিক্ষার্থীদের স্বার্থ-প্রত্যাশা-অধিকারের আলোকে হল খুলে এবং স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করে পরীক্ষা গ্রহণের যাবতীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য।

বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রদলের সাবেক সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সুলতান আহমেদ রাহি বলেন, সেশনজট নিরসন এবং প্রতিযোগিতামূলক পরীক্ষায় শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণের জন্য দ্রুততম সময়ে পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত জরুরি। তার আগে জরুরি স্বাস্থ্যবিধি মেনে শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তার স্বার্থে হলগুলো খুলে দেয়া। এবিষয়ে আগামী ১৫ ডিসেম্বর সাংগঠনিকভাবে উপাচার্য বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করবেন বলে তিনি জানান।

বিজ্ঞাপন

আটকে থাকা পরীক্ষাগুলো নেয়া সময়োপয়োগী ও গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত বলে মনে করেন বিশ্ববিদ্যালয় সংসদ ছাত্র ইউনিয়নের সভাপতি শাকিলা খাতুন।

তিনি বলেন, যত দ্রুতই সম্ভব পরীক্ষার রুটিন দেয়া হোক। এমন সিদ্ধান্ত শিক্ষার্থীদের জন্য ইতিবাচক ও সময়ের দাবি। কিন্তু আবাসিক হল বন্ধ রেখে পরীক্ষা গ্রহণের বিষয়টি শিক্ষার্থীদের মাঝে প্রচণ্ড উদ্বেগ ও দুশ্চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়াবে। তাই শুধুমাত্র পরীক্ষার্থীদের জন্য হলেও হলগুলো খুলে দেয়া হোক।

বিজ্ঞাপন

রাবি শাখা ছাত্র ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক মহব্বত হোসেন মিলন বলেন, করোনাকালীন পরিস্থিতির কারণে শিক্ষার্থীরা সেশনজটে পড়তে যাচ্ছে। যা শুধু শিক্ষার্থী নয় বরং পুরো রাষ্ট্রের জন্যই বড় সমস্যা। এই সংকট থেকে উত্তরণের জন্য শিক্ষার্থীদের দাবির কথা বিবেচনা করে স্বাস্থ্যবিধি মেনে স্নাতক ও স্নাতকোত্তরের চুড়ান্ত পরীক্ষা সরাসরি নেওয়ার ব্যবস্থা করতে হবে। এবং একই সাথে শিক্ষার্থীদের জন্য থাকার ব্যবস্থা ও পড়াশোনার পরিবেশ প্রশাসনকে নিশ্চিত করতে হবে।

অবিলম্বে হল খুলে দেয়ার দাবি জানিয়ে ছাত্র অধিকার পরিষদ রাবি শাখার সভাপতি মুর্শিদুল আলম বলেন, যেহেতু করোনাকালীন সময়ে ক্লাস পরীক্ষা বন্ধ থাকলেও বিভিন্ন চাকরির নিয়োগ পরীক্ষা বন্ধ নেই। নিয়মিত সার্কুলার হচ্ছে। এতে বেশিরভাগ ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন স্নাতক শেষ বর্ষ এবং স্নাতকোত্তরের শিক্ষার্থীরা।

বিজ্ঞাপন

সুতরাং তাদের পরীক্ষা নেওয়ার ব্যবস্থা করে স্বাস্থ্যবিধি মেনে হল গুলো খুলে দিলে তারা ভালোভাবে নিজের রুমে থেকে পড়াশোনার সুযোগ পাবেন এবং উপযুক্ত পরিবেশে পড়াশোনা করে পরীক্ষায় অংশ নিতে পারবেন। মোটকথায় দেশের সার্বিক দিক বিবেচনায় বিশ্ববিদ্যালয় সচল করে ক্লাস পরীক্ষা নেওয়া এখন সময়ের দাবি।

বিজ্ঞাপন

The Campus Today YouTube Channel

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
themesbazar_creativenews_II7
All rights reserved © 2019-20 The Campus Today