বিনামূল্যে ফেসশিল্ড সরবরাহ করছে নাটোরের একদল শিক্ষার্থী

নাটোর টুডেঃ নাটোরের একদল শিক্ষার্থী মিলে নিজ উদ্যোগে ১০০ পিচফেসশিল্ড তৈরি করেছেন। ফেসশিল্ড তৈরিতে আর্থিকভাবে সহযোগিতা করেছেন ‘নাটোর আ্যসোসিয়েশন অফ কুয়েট এ্যালামনাই”।

আজ সোমবার নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালের সহকারী পরিচালক ডাঃ মোঃ আনছারুল হক এর কাছে ফেসশিল্ড হস্তান্তর করেন।

বর্তমানে করোনা ভাইরাসের থেকে সুরক্ষা পেতে ব্যবহৃত হচ্ছেপিপিই। সেই সঙ্গে বিশেষ সুরক্ষা দিতে পিপিই এর সাথে ব্যবহৃত হচ্ছে ফেসশিল্ড। হাঁচি – কাঁশির ড্রপলেটে করোনার প্রধান ট্রান্সমিশন পাথ। চোখ এবং মুখ ঢাকার জন্য মাস্ক এবং গগলসের সঙ্গে ফেসশিল্ড আরো এক ধাপ বেশি সুরক্ষা প্রদান করে ডাক্তার ও স্বাস্থ্যকর্মীদের।

ওই ৫জন শিক্ষার্থী হলেন- আল মাহমুদ মুরাদ (বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়); মাহির ফয়সাল অংকন (খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়); শিখন বিশ্বাস (ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়); হাবিব ফারাবি রাব্বি ( ঢাকা কলেজ); মায়মুনা সরকার ইফতি ( ইউনিভার্সিটি অব এশিয়া প্যাসিফিক)।

শিক্ষার্থী আল মাহমুদ মুরাদ বলেন, করোনা ভাইরাস মোকাবিলা করা আমাদের সকলে দায়িত্ব। নিজ নিজ অবস্থান থেকে যে যেভাবে পারি এগিয়ে আসি। এছাড়া নাটোরের সবগুলো উপজেলায় আমরা আমাদের এই সামগ্রী পৌঁছে দিতে চাই।

এ ব্যাপারে শিক্ষার্থী মাহির ফয়সাল অংকন জানান, এই ফেসশিল্ড যেকোন শিক্ষার্থী বাসায় বসেই বানাতে পারে। এভাবে সারাদেশব্যপী শিক্ষার্থীরা যদি এমন উদ্যোগ গ্রহণ করে তাহলে দেশের সকল পর্যায়ের চিকিৎসক এবং মাঠ পর্যায়ের কর্মীদের অতিরিক্ত সুরক্ষা প্রদান করা সম্ভব হবে। কোভিড-১৯ এর এই মহামারি মোকাবিলা করতে হলে সবাইকে নিজ নিজ স্থান থেকে এগিয়ে আসতে হবে।”

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও সংবাদ

Leave a Comment